বুধবার ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৭ || সময়- ৩:১৫ pm
বিচারে বিলম্ব এবার দায়রা জজের কাছে ব্যাখ্যা চেয়েছেন হাইকোর্ট

ইনফরমেশন ওয়াল্ড আইন নিউজ ডেক্স
চট্টগ্রাম:-----ডেসটিনি গ্রুপের অর্থ আত্মসাৎ ও পাচারের মামলায় গত ০২ ফেব্রুয়ারি একমাসের মধ্যে অভিযোগ গঠন এবং এক বছরের মধ্যে বিচার শেষ করার কথা বলেছিলেন হাইকোর্ট। কিন্তু আজ পর্যন্ত মামলার অভিযোগ  গঠন না করায় ঢাকা মহানগর দায়রা জজ কামরুল হোসেন মোল্লাকে লিখিত ব্যাখ্যা দিতে নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট।
বুধবার (২৭ জুলাই) দুদকের আইনজীবীর আবেদনের প্রেক্ষিতে বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি জেবিএম হাসানের হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন।
আগামী ১১ আগস্টের মধ্যে ওই বিচারককে এই ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়েছে।
আদালতে দুদকের পক্ষে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট খুরশীদ আলম খান।
২০১২ সালের ৩১ জুলাই ডেসটিনি গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ রফিকুল আমীন, প্রেসিডেন্ট এম হারুনুর রশিদ ও পরিচালক দিদারুল আলমসহ ২২ জনের বিরুদ্ধে কলাবাগান থানায় মামলা করে দুদক। তদন্ত শেষে ২০১৪ সালের ৪ মে মামলার অভিযোগপত্র দাখিল করা হয়।
ওই মামলায় ২০১২ সালের ২০ অক্টোবর গ্রেফতার হন দিদারুল। বিচারিক আদালতে জামিন চেয়ে ব্যর্থ হয়ে ২০১৩ সালে হাইকোর্টে জামিনের আবেদন জানান তিনি।
আবেদনের প্রাথমিক শুনানি নিয়ে ওই বছরের ৩ এপ্রিল কেন তাকে জামিন দেওয়া হবে না তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেন হাইকোর্ট। এরপর গত ০২ ফেব্রুয়ারি দিদারুল আলমের জামিন আবেদন উত্থাপিত হয়নি মর্মে খারিজ করে দেন হাইকোর্ট।
রায়ের পর্যবেক্ষণে বলা হয়, এ মামলায় আগামী একমাসের মধ্যে অভিযোগ গঠন করা এবং এক বছরের মধ্যে মামলার নিষ্পত্তি করতে হবে।
খুরশীদ আলম খান জানান, গত ১৫ মার্চ হাইকোর্টের লিখিত আদেশ বিচারিক আদালতে যায়। এরপরও অভিযোগ গঠন না হওয়ায় মামলাটি বর্তমান আদালত থেকে স্থানান্তরের জন্য হাইকোর্টে আবেদন জানানো হয়। এরপর মামলাটি নিষ্পত্তিতে বিলম্বের ব্যাখ্যা তলব করেছেন হাইকোর্ট।