বৃহস্পতিবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৭ || সময়- ৩:৫৪ am
তপন চৌধুরীর প্রথম কিছু সাফল্যের নেপথ্য সাতজনকে সম্মাননা

ইনফরমেশন ওয়াল্ড বিনোদন নিউজ ডেক্স
চট্টগ্রাম:----গানে গানে চার দশক পেরিয়ে এসেছেন কণ্ঠশিল্পী তপন চৌধুরী। আশির দশকে তাকে সোলস ব্যান্ডে নিয়ে এসেছিলেন সুব্রত বড়ুয়া। এই ব্যান্ডে তার গাওয়া জনপ্রিয় গান ‘মন শুধু মন ছুঁয়েছে’ লিখেছেন ও সুর করেছেন দুই সহোদর নকিব খান ও পিলু খান। তার প্রথম একক অ্যালবাম ‘তপন চৌধুরী’র সব গানের সুর ও সংগীত পরিচালনা করেন আইয়ুব বাচ্চু।
চলচ্চিত্রে তপন চৌধুরী প্রথম গান করেন আমজাদ হোসেন পরিচালিত ‘ভাত দে’ ছবিতে। ‘কতো কাঁদলাম কতো গো সাধলাম’ শিরোনামের গানটি সুর করেন আলাউদ্দিন আলী। তার আরেক জনপ্রিয় গান ‘পলাশ ফুটেছে শিমুল ফুটেছে’ গানের গীতিকার ও সুরকার তাজুল ইমাম।
নিজের সংগীতজীবনে ভূমিকা রাখা নেপথ্যের এই সাত গুণী ব্যক্তিত্বের অবদানকে ভোলেননি তপন চৌধুরী। তাই তাদেরকে সম্মানিত করতে যাচ্ছেন তিনি। আগামী ৭ জানুয়ারি সন্ধ্যায় নিজের জন্মদিনে ঢাকা ক্লাবে গুণীজনদের হাতে আনুষ্ঠানিকভাবে সম্মাননা স্মারক তুলে দেবেন তিনি।
এ অনুষ্ঠানে ১৩ বছর পর তপন চৌধুরীর নতুন একক অ্যালবাম ‘ফিরে এলাম’-এর প্রকাশনাও হবে। থাকছে তার সংগীত পরিবেশনা। প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান বাংলা ঢোলের আয়োজনে এ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ ও বিশেষ অতিথি থাকবেন সংসদ সদস্য শেখ ফজলে নূর তাপস।
সম্মাননা ও একক অ্যালবামের প্রকাশনা প্রসঙ্গে তপন চৌধুরী বলেছেন, ‘অনেকদিন পর গানে ফিরেছি। এটা আমার কাছে ভালোলাগার বিষয়। এটা সম্ভব হয়েছে বাংলা ঢোলের কারণে। আমাকে ঘিরে তাদের এ আয়োজন সফল হোক।’
‘ফিরে এলাম’ অ্যালবামে গান থাকছে ১০টি। ‘যেতে যেতে কেন পড়ে বাধা’ ও ‘পলাশ ফুটেছে শিমুল ফুটেছে’ গান দুটি নতুন সংগীতায়োজনে গেয়েছেন তপন চৌধুরী। বাকিগুলো নতুন। তার সঙ্গে একটি গানে কণ্ঠ দিয়েছেন ন্যানসি।
গানগুলো লিখেছেন সেজান মাহমুদ, সাইফুল ইসলাম মুকুল, মাহবুব পিলু, তাজুল ইমাম, কবির বকুল ও মিলন খান। সুর করেছেন সুবীর নন্দী, সেজান মাহমুদ, মাহবুব পিলু ও পুলক অধিকারী। সংগীতায়োজনে শওকত আলী ইমন ও সুমন কল্যাণ।
তথ্য সূত্র :-বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম